মিরপুর মাজার শরীফ কমপ্লেক্সকে ঘিরে বেশুমার চাঁদাবাজি: নেপথ্যে কমিটির সদ্যসরা


প্রকাশের সময় : ডিসেম্বর ২২, ২০২৩, ৮:২২ অপরাহ্ন / ৩৮৮
মিরপুর মাজার শরীফ কমপ্লেক্সকে ঘিরে বেশুমার চাঁদাবাজি: নেপথ্যে কমিটির সদ্যসরা

দেশের বিভিন্ন দূর-দূরান্ত থেকে মুসল্লিরা ও মাজার ভক্তরা নামাজ পড়তে ও জিয়ারত করতে আসেন হযরত শাহ আলী মাজার শরীফ। মাজার শরীফ একটি পবিত্র জায়গা। কিন্ত শাহ আলী মাজার শরিফের প্রাঙ্গণে ওপেন মাদক বিক্রি দেখে হতাশ মুসল্লিরা। মাদক ব্যবসায়ীদের আশ্রয় প্রশ্রয় দিয়ে আসছেন খোদ পরিচালনা কমিটির লোকজন, যদিও মাদক বিক্রয় বিষয় পুলিশ প্রশাসন মাজার প্রশাসক সবাই বিষয়টি অবগত আছেন। বিভিন্ন সময় পুলিশ প্রশাসনের অভিযান পরিচালনা করেন। তাতেও কোনভাবেই মাদক ব্যবসায়ীদের কে মাজার প্রাঙ্গণে বসে মাদক বিক্রি থেকে বিরত রাখতে পারছেন না। বাধা দেওয়া মাদক ব্যবসায়ীরা মাজারের সিকিউরিদেকে হুমকি-ধামকি দিয়ে আসছেন। এতে মাজার ভক্তরা ও মুসল্লিদের মনের ক্ষোভ ফুঁসে উঠেছে ।

শুধু তাই নয়, দীর্ঘদিন ধরেই রাজধানীর মিরপুরের হযরত শাহ্ আলী বাগদাদী (রঃ) মাজার শরীফ কমপ্লেক্সের সম্পত্তি অবৈধভাবে দখল করে বৃহত্তর কাঁচাবাজার আড়ৎ মালিক সমিতি ও বৃহত্তর মিরপুর ফল বাজার আড়ৎ মালিক সমিতির নামে, এমনকি নামে বেনামে বেশুমার চাঁদাাবাজিসহ প্রতিষ্ঠানটিকে ঘিরে রিতীমত হরিলুটের মহোৎসব চলছে বলে অভিযোগ উঠেছে। স্থানীয়দের দাবি, মাজার শরীফ কমপ্লেক্সকে ঘিরে বেশুমার চাঁদাবাজির বিপুল পরিমাণ অর্থ আত্মসাতের অভিযোগ খোদ স্থানীয় চিহ্নিত সংঘবদ্ধ কিছু প্রভাবশালী রাজনৈতিক নেতাদের বিরুদ্ধেই এর সাথে যুক্ত আছেন মাজার পরিচালনা কমিটির কিছু সদ্যস।

স্থানীয়দে তথ্যমতে, মাজার শরীফের বিপুল পরিমাণ সম্পত্তি অবৈধভাবে দখল করে বাড়িঘর তৈরি করে রেখেছেন। এদের বিরুদ্ধে পরিচালনা কমিটি কোন পদক্ষেপ না নিয়ে, উল্টো তাদেরকে সহযোগিতা করে আসছেন বর্তমান মাজার পরিচালনা কমিটি। অবৈধ দখলদার থেকে প্রতিমাসে ভাড়া বাবদ টাকা নিচ্ছেন বলে অভিযোগ রয়েছে।

লুটপাট জমি দখল ও চাঁদা আদায় করে আসছেন বহুদিন ধরে মাজার পরিচালনা কমিটির কিছু সদস্য। যেমন মাজারের জমি দখল করা, মাজারে নামে রিসিট তৈরি করে চাঁদা আদায় করা। মাজার প্রাঙ্গণে অবৈধভাবে কাঁচাবাজার বসিয়ে, গাড়ি ও ভ্যান গাড়ি থেকে রিকশা থেকে চাঁদা আদায় করছেন লক্ষ লক্ষ টাকা। চাঁদাবাজির সাথে মাজার কর্তৃপক্ষ জড়িত আছে

আরো জানা যায়, মাজারে পশ্চিম দিকে, জলাশয় ভরাট করে, কাঁচাবাজার তৈরি করার উদ্যোগ নেন মাজার কর্তৃপক্ষ। মিরপুর মাজার শরীফ ওয়াকফ এস্টেট আওতাধীন কাঁচাবাজার আড়ৎ কমপ্লেক্সের বিভিন্ন সাইজের দোকান ঘর অত্র পরিচালনা কমিটির নির্ধারিত শর্তাধীনে ভাড়া দেওয়ার জন্য বিগত ১১-০৫-২০২২ ইং তারিখ দৈনিক মানবজমিন পত্রিকা ভাড়ার বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেন। ভাড়ার বিজ্ঞপ্তি দিয়ে প্রায় ৩৪০০ লোকের কাছে ১০০০ টাকা করে ফরম বিক্রি করেন করেন। ১০০০ টাকা করে প্রায় ৩৪ লক্ষ টাকা ফরম বিক্রি করেন। কিন্তু মাজার কর্তৃপক্ষ এখন ওপেন টেন্ডার আহ্বান করে নাই। কিন্তু মাজারে গুঞ্জন শোনা যায় ভিতরে ভিতরে টাকার বিনিময় গোপনে বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে। গোপনে বরাদ্দ দিয়ে এখান থেকে শত শত কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগ উঠেছে মাজার কর্তৃপক্ষ এন্ড পরিচালনা কমিটির বিরুদ্ধে।
মাজার পরিচালনা কমিটির বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করার সাহস নেই সাধারণ মানুষের। কারণ কমিটিতে রয়েছে, মিরপুরের প্রভাবশালী রাজনৈতিক নেতারা।

পুরাতন কাঁচাবাজার আড়াৎ থেকে লক্ষ লক্ষ টাকা ভাড়া উত্তোলন করে। মাজারের নামে ভাড়া উত্তোলন করে, নাম মাত্রে কিছু টাকা মাজারের ফান্ডে দিয়ে বাদবাকি টাকা আত্মসাৎ করার অভিযোগ রয়েছে পরিচালনা কমিটির বিরুদ্ধে।

নামাজের সময় সূচী

  • ফজর
  • যোহর
  • আছর
  • মাগরিব
  • এশা
  • সূর্যোদয়
  • ৩:৪৬ পূর্বাহ্ণ
  • ১২:০৩ অপরাহ্ণ
  • ৪:৪০ অপরাহ্ণ
  • ৬:৫২ অপরাহ্ণ
  • ৮:১৮ অপরাহ্ণ
  • ৫:১১ পূর্বাহ্ণ